ব্রেকিং নিউজঃ

মনোহরদীতে ভুয়া দুই দন্ত চিকিৎসকের জরিমানা

আপডেটঃ ৬:০০ অপরাহ্ণ | জুলাই ০৫, ২০২১

মনোহরদী (নরসিংদী)সংবাদদাতা: নরসিংদীর মনোহরদীতে সামিরাজ হাসান লাইলী (৩৫) নামে এক ভুয়া দন্ত চিকিৎসকের ৩০ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। গত রবিবার আদালত পরিচালনা করেন মনোহরদী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) এ.এস.এম কাসেম। দন্ডপ্রাপ্ত নারী উপজেলার কাঁচিকাটা ইউনিয়নের কাঁটাবাড়িয়া গ্রামের পলাশ মিয়ার স্ত্রী।
ইউএনও অফিস  সূত্রে জানা যায়, দন্ডপ্রাপ্ত ওই নারী শেখের বাজারে দীর্ঘদিন ধরে ভূঁইয়া ডেন্টাল হোম নামে একটি প্রতিষ্ঠান খুলে দাঁতের চিকিৎসা করছিলেন। দন্ত চিকিৎসায় কোন প্রকার সনদ ছাড়াই  তিনি স্থানীয় রোগীদের চিকিৎসাপত্র দিতেন ও চিকিৎসার নামে এলাকার মানুষের কাছ থেকে মোটা অঙ্কের টাকা হাতিয়ে নিতেন বলে অভিযোগ ছিল তার বিরুদ্ধে। গত রবিবার সকালে কভিড-১৯ নিয়ন্ত্রণে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা এ এস এম কাসেমের নেতৃত্বে সেনাবাহিনী, র‌্যাব ও পুলিশ নিয়ে শেখের বাজারে অভিযান চালানো হয়। এ সময় দাঁতের ওই প্রতিষ্ঠান খোলা পেয়ে ভ্রাম্যমান আদালত সেখানে অবস্থান নেয় । পরে তাঁর কাছে দন্ত চিকিৎসার  বৈধ কাগজপত্র ও ডাক্তারি পাসের সনদপত্র চাওয়া হলে তিনি দেখাতে ব্যর্থ হন। পরে তাকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে হাজির করা হয়। আদালত মেডিকেল অ্যান্ড ডেন্টাল কাউন্সিল আইন-২০১০ অনুযায়ী তাকে ৩০ হাজার টাকা জরিমানা করেন। সেই সঙ্গে প্রতিষ্ঠানটিও বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। এর আগের দিন শনিবার উপজেলার লেবুতলা ইউনিয়নের গাবতলী বাজার এলাকায় সেবা ডেন্টালের ডা: মোবারক হোসেন (৪০) নামে আরেক ভূয়া দাঁতের ডাক্তারকে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে ৫০ হাজার টাকা  জরিমানা করা হয়। পরে তাকে বিভিন্ন শর্তে মুচলেকা দিয়ে ছেড়ে দেয়া হয়।