মদনে বালুবাহী নৌকা থেকে পড়ে মাঝির মৃত্যু

আপডেটঃ ৪:৪৭ অপরাহ্ণ | নভেম্বর ২০, ২০২০

মদন(নেত্রকোনা)সংবাদদাতাঃ নেত্রকোনার মদনে মগড়ী নদীর সেতুতে আটকে যাওয়া বালুবাহী নৌকাটি ছুটাতে গিয়ে তৌহিদ মিয়া(৫৫) নামের এক মাঝির মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার সকালে উপজেলা মগড়া নদীর শহীদ আব্দুল কদ্দুছ সেতুর সংলগ্ন এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। মাঝি তৌহিদ মিয়া কিশোরগঞ্জ জেলার বাজিতপুর উপজেলার দিঘির পাড় গ্রামের মৃত ওসমান মিয়ার ছেলে।
স্থানীয় প্রত্যক্ষদর্শী ও নৌকায় থাকা অন্য সাথীরা জানায়, আমরা বালুবাহী নৌকাটি বালু বোঝাই করে দূর্গাপুর উপজেলা থেকে নৌ পথে বরিশালের উদ্দ্যেশে রওনা হলে শুক্রবার সকালে মদন উপজেলার মগড়া নদীর দেওয়ান বাজার সংলগ্ন শহীদ আব্দুল কদ্দুছ সেতুতে নৌকাটি আটকে যায়। পরে সকাল থেকে সব ধরণের নৌ চলাচল বন্ধ থাকলে নৌকাটি ছুটানোর জন্য ট্রাকের সঙ্গে দঁড়ি বেঁধে ছুটানোর চেষ্টা করা হয়। এক পর্যায়ে তৌহিদ মিয়া নদীর পাড়ে পড়ে যায়। স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে মদন হাসপাতালে নিয়ে গেলে জরুরী বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডাক্তার শান্তুনা শাহা তাকে মৃত ঘোষনা করেন।

বালুবাহী নৌকাটির মালিক ময়মনসিংহ জেলার নান্দাইল উপজেলার মুসুল্লী গ্রামের ফারুক মৌল্লার এক বছরের জন্য তৌহিদ বছরের জন্য ভাড়ায় আনে ব্যবসা করার জন্য ভাড়া নেন।
সকাল থেকে নৌ চলাচল বন্ধ থাকায় মদন ফারায় সার্ভিসের একটি ইউনিট ব্রীজের নিচে আটকে যাওয়া নৌকা উদ্ধার অভিযান চালিয়ে যাচ্ছে বলে জানান মদন ফায়ার সার্ভিয়ের স্টেশন অফিসার আহমেদুল কবির।
মদন থানার ওসি মাসুদুজ্জামান জানান, তৌহিদ মিয়া নামে এক মাঝি মৃত্যুর সংবাদে হাসপাতালে পুলিশ প্রেরণ করা হয়েছে।
উপজেলা সহকারী কমিশনার(ভূমি) উন্মে সালমা জানান, মগড়া নদীর দেওয়ান বাজার সংলগ্ন শহীদ আব্দুল কদ্দুছ সেতুতে নৌকা আটকে নৌ চলাচল বন্ধ রয়েছে। আটকে যাওয়া নৌকার মাঝি মারা গেছে। আমি ঘটনাস্থলে আছি। নৌকাটি সরানোর জন্য মদন ফায়ার সার্ভিসের ইউ

সি এন এ নিউজ/জামান