ইসলাম

মক্কা থেকে বিদায়ের আগে হাজিদের মূল কাজ কী?

ধর্ম ডেস্ক :শারীরিক ও আর্থিক সামর্থবানদের জন্য হজ আদায় করা ফরজ। তবে আল্লাহর এ নির্দেশ পালনে এমন কোনো কাজ করা যাবে না; যে কাজে ইসলামি শরিয়তের কোনো অনুমোদন নেই। তবে হজের কার্যক্রম সম্পন্ন হওয়ার পর মক্কা থেকে নিজ নিজ দেশে রওয়ানা হওয়ার আগে অবশ্যই তাওয়াফে বিদা বা বিদায়ী তাওয়াফ করতে হবে। যা পালন করা ওয়াজিব বা আবশ্যক। হাজিগণ হজ পালনের ...

Read More »

মসজিদে না গিয়ে ঘরে নামাজ পড়া প্রসঙ্গে প্রিয়নবির ঘোষণা

ধর্ম ডেস্ক :আল্লাহর পক্ষ থেকে মানুষের প্রতি সবচেয়ে বড় দায়িত্ব হলো- সৎ কাজের আদেশ ও অন্যায় কাজ থেকে নিষেধাজ্ঞার কর্তব্য সম্পাদন করা।’ অর্থাৎ নিয়মিত সৎ কাজ করা আর অন্যায় কাজ থেকে নিজেকে বিরত রাখার পাশাপাশি জামাআতের সঙ্গে নামাজ আদায় করা। আল্লাহ তাআলা কুরআনে পাকে এ কাজগুলোর নির্দেশ দিয়েছেন। রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম হাদিসে পাকে অনেক নসিহত পেশ করেছেন। বর্তমান ...

Read More »

কুরবানিতে যেসব পশু জবাই করা বিশুদ্ধ ও উত্তম

ধর্ম ডেস্ক :কুরবানি, আত্মত্যাগের এক অনন্য ইবাদত। আল্লাহর পক্ষ থেকে প্রত্যেক জাতির জন্যেই ছিল কুরবানির বিধান। আল্লাহ তাআলা বলেন- ‘আমি প্রত্যেক সম্প্রদায়ের জন্য কুরবানির বিধান দিয়েছি; যাতে আমি তাদেরকে জীবনোপকরণ স্বরূপ যে সব চতুষ্পদ জন্তু দিয়েছি সেগুলোর ওপর আল্লাহর নাম উচ্চারণ করে।’ (সুরা হজ : আয়াত ৩৪) আল্লাহ তাআলা বান্দাকে কুরবানির জন্য তার দেয়া চতুষ্পদ জন্তু তাঁরই নামে জবাইয়ের নির্দেশ ...

Read More »

কী পরিমাণ সম্পদ থাকলে কুরবানি আবশ্যক?

ধর্ম ডেস্ক :ইবাদতের জন্যই সুনির্দিষ্ট মানদণ্ড রয়েছে। যেমন সম্পদহীন ব্যক্তি চাইলে হজ আদায় করতে পারবে না। আবার সম্পদশালী ব্যক্তির শারীরিক সক্ষমতা না থাকলেও হজ করতে পারবে না। জাকাত আদায়ে রয়েছে সুনির্দিষ্ট নীতিমালা। কিন্তু কুরবানির মতো আত্মত্যাগের মহান ইবাদত কার কার জন্য প্রযোজ্য? কী পরিমাণ সম্পদ হলে কুরবানি আবশ্যক হয়? এ বিষয়ে রয়েছে সুস্পষ্ট বর্ণনা। জিলহজ মাসের ১০, ১১ ও ১২ ...

Read More »

পারস্পরিক সুসম্পর্ক রক্ষাকারীর ‘বন্ধু’র মর্যাদা

ধর্ম ডেস্ক :আল্লাহ তাআলা মানুষকে পাস্পরিক সম্পর্ক রক্ষা করার কথা বলেছেন। আত্মীয়তার সম্পর্ক অটুট রাখার কথা। যারা সুসম্পর্ক নষ্ট করে, আত্মীয়তার সম্পর্ক নষ্ট করে তাদের দোয়া কবুল হয় না। তাদেরকে মহান আল্লাহ তাআলা ক্ষমা করেন না। পক্ষান্তরে যারা পারস্পরিক সুসম্পর্ক বজায় রাখে। আত্মীয়তার সম্পর্ক অটুট রাখে তাদের জন্য রয়েছে অনেক সুসংবাদ ও মর্যাদা। এ সম্পর্কে প্রিয়নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম ...

Read More »

সাফা-মারওয়া পাহাড়ে সাঈ করতে হয় কেন?

ধর্ম ডেস্ক :‘সাঈ’ হলো হজ ও ওমরার রোকন। হজ ও ওমরায় ‘সাঈ’ করা ওয়াজিব। সাফা ও মারাওয়া পাহাড়দ্বয়ের মধ্যবর্তী স্থানে নির্ধারিত নিয়মে সাঈ করতে হয়। এটি আল্লাহ তাআলার নিদর্শনসমূহের অন্যতম। আল্লাহ বলেন- ‘নিশ্চয় সাফা ও মারওয়া (পাহাড় দুটি) আল্লাহর নিদর্শনসমূহের অন্যতম। সুতরাং যে কাবাগৃহে হজ এবং ওমরা সম্পন্ন করে; তার জন্য এ (পাহাড়) দুটি প্রদক্ষিণ (সাঈ) করলে কোনো পাপ নেই।’ ...

Read More »

ঋণ থেকে মুক্তি পাওয়ার দোয়া

ধর্ম ডেস্ক : আমি আপনাদের জন্য একটি গুরুত্তপূর্ণ লেখা নিয়ে উপস্থিত হয়েছি যে লেখার মধ্যে খুব মূল্যবান দোয়া উল্লেখ করে দিয়েছি। পেরেশানী ও চিন্তা মুক্তির পরীক্ষিত দোয়া , ঋণ থেকে মুক্তি পাওয়ার সর্বশ্রেষ্ঠ দোয়া। এই লেখটি সেই সব লোকদের জন্য খুব উপকারে আসবে যারা অনেক ঋণ গ্রস্থ এবং ঋণের কারণে চিন্তিত ঋণ আদায় করতে পারছেন না। ঋণ আদায় করতে অক্ষম ...

Read More »

সঠিকভাবে দোয়া করলে আল্লাহ যা দান করেন

ধর্ম ডেস্ক :দোয়া বা আল্লাহর কাছে ধরনা দেয়াও ইবাদত। আর আল্লাহর কাছে ধরনা দিতে হলে কুরআন-সুন্নাহ মোতাবেক প্রর্থনা জরুরি। এ দোয়া বা ধরনা দেয়ার রয়েছে কিছু নিয়ম ও শর্ত। কারণ সঠিক পন্থায় দোয়া না করলে তা কবুল হওয়ার সম্ভাবনা নেই। আল্লাহ তাআলা মানুষে কোনো মাধ্যম ছাড়াই রহমত বরকত মাগফেরাত দেয়ার কথা ঘোষণা করেছেন। তাই আল্লাহর ঘোষণা অনুযায়ী তাকে ডাকলেই আল্লাহ ...

Read More »

জুমআর দিনের আমল ও ফজিলত

ধর্ম ডেস্ক :সপ্তাহের শ্রেষ্ঠ দিন শুক্রবার। এ দিন গরিবের হজের দিন। জুমআর নামাজের প্রস্তুতিতে করণীয় ও গুরুত্বপূর্ণ ফজিলত বর্ণনা করেছেন প্রিয়নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম। এ দিনের গুরুত্বপূর্ণ করণীয় ও ফজিলতগুলো তুলে ধরা হলো- জুমআর দিন যা করবেন ০ জুমআর দিন মসজিদে যাওয়ার পূর্বে গোসল করা; ০ উত্তম পোশাক পরিধান করা; ০ সুগন্ধি ব্যবহার করা; ০ জুমআর নামাজ আদায়ের জন্য ...

Read More »

ইহরাম অবস্থায় যে ভুলে হাজিদের কাফফারা দিতে হবে

ধর্ম ডেস্ক :হজের ফরজ কাজ আদায় করতে না পারলে কোনো কাফফারা হবে না বরং পরের বছর কাজা করতে হবে। নতুবা হজ আদায় হবে না। আর হজের ৩ ফরজ কাজ ব্যতিত অন্যান্য কাজের কোনোটি ছুটে গেলে তার জন্য ছোট ও বড় কাফফারা দিতে হবে। হজের কাফফারা ইহরাম অবস্থায় নিষিদ্ধ কাজ করলে কাফফারা হিসেবে দম, বুদনা বা সাদকা আদায় করতে হয়। আর ...

Read More »