আম্পানে ৫ জেলায় আটজনের মৃত্যু

আপডেটঃ ১১:৪৭ পূর্বাহ্ণ | মে ২১, ২০২০

সি এন এ প্রতিবেদক: বঙ্গোপসাগর থেকে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় আম্পান দুর্যোগে মধ্যে দেশের পাঁচ জেলায় আটজনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। এর মধ্যে সাতক্ষীরা শহরে ঝড়ে গাছচাপায় এক গৃহবধূ, যশোরে গাছচাপায় মা-মেয়ে, পটুয়াখালীতে শিশুসহ দুইজন, পিরোজপুরে দেয়ালচাপায় একজন, ভোলায় গাছচাপা ও ট্রলারডুবে দুইজনের মৃত্যু হয়েছে। স্থানীয় প্রশাসনের কর্মকর্তা ও জনপ্রতিনিধিরা এসব খবর দিয়েছেন। ঢাকাটাইমসের প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর।

উপকূলীয় জেলা পটুয়াখালীতে দুইজনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। বুধবার সন্ধ্যায় কলাপাড়ায় মানুষকে সচেতন করতে গিয়ে ধানখালীর ছৈলাবুনিয়া এলাকায় খালে নৌকাডুবে শাহ আলম নামে এক স্বেচ্ছাসেবীর মৃত্যু হয়েছে। এছাড়া গলাচিপা উপজেলার পানপট্টি এলাকায় ঝড়ো হাওয়ায় গাছের ডাল ভেঙে পড়ে রাশেদ (৬) নামে এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে।

গলাচিপা থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মনিরুল ইসলাম জানান, সন্ধ্যায় গলাচিপা উপজেলার পানপট্টি এলাকায় ঝড়ে গাছের ডাল ভেঙে পড়ে ছয় বছরের শিশু রাশেদ মারা যায়।

কলাপাড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবু হাসনাত মোহাম্মদ শহীদুল্লাহ জানান, কলাপাড়ায় ঘূর্ণিঝড় আম্পান মোকাবিলায় মানুষকে সচেতন করতে গিয়ে সকালে ধানখালীর ছৈলাবুনিয়া এলাকায় খালে নৌকা ডুবে নিখোঁজ হন স্বেচ্ছাসেবী শাহ আলম। এর নয় ঘণ্টা পর ডুবুরিরা তারা মরদেহ সন্ধ্যায় উদ্ধার করে।

ভোলা: এই জেলায় গাছের নিচে চাপা পড়ে ও ট্রলার ডুবিতে দুইজনের মৃত্যু হয়েছে। তাদের একজনের নাম সিদ্দিক ফকির এবং অন্যজনের নাম মো. রফিকুল ইসলাম।

নিহত ছিদ্দিক ফকির জেলার চরফ্যাশন উপজেলার দক্ষিণ আইচা থানার চর মানিকা ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা। আর রফিকুল ইসলাম বোরহানউদ্দিন থানার মনিরাম এলাকার বাসিন্দা।

বুধবার দুপুরে উপজেলার দক্ষিণ আইচা থানার প্রধান সড়কে ঝড়ে গাছের ডাল পড়ে ছিদ্দিক ফকিরের মৃত্যু হয়। অন্যদিকে দুপুরের পরে সদর উপজেলার রাজাপুরের মেঘনা নদীতে ট্রলার ডুবিতে রফিকুল ইসলামের মৃত্যু হয়।

সাতক্ষীরা: বুধবার সন্ধ্যায় সাতক্ষীরা সদরে গাছচাপা পড়ে এক গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে। আম কুড়াতে গিয়ে ঝড়ের মধ্যে ভেঙে পড়া গাছের নিচে চাপা পড়ে তার মৃত্যু হয়।

জেলা প্রশাসক এসএম মোস্তফা কামাল বলেন, বুধবার সন্ধ্যার পর জেলা শহরের কামালনগরে আমগাছ গাছ ভেঙে পড়ে ওই গৃহবধূর মৃত্যু হয়। তবে নিহতের পরিচয় জানাতে পারেননি তিনি।

পিরোজপুর: পিরোজপুরের মঠবাড়িয়া উপজেলায় ঝড়-বৃষ্টির মধ্যে দেয়াল চাপা পড়ে শাহজাহান মোল্লা নামে একজনের মৃত্যু হয়েছে। উপজেলা শহরে মঠবাড়িয়া কলেজ এলাকায় বুধবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে এ ঘটনা ঘটে বলে জানান মঠবাড়িয়া থানার ওসি মো. মাসুদুজ্জামান।

নিহত শাহজাহান মোল্লা উপজেলার দাউদখালী ইউনিয়নের গিলাবাদ গ্রামের মৃত মজিদ মোল্লার ছেলে। তিনি মঠবাড়িয়া সরকারি কলেজের পিছনে একটি ভাড়া বাসায় থাকতেন।

জানা গেছে, সন্ধ্যার পরে তিনি কলেজের পেছনে বাসায় যাওয়ার পথে রাস্তার পাশের একটি বাড়ির সীমানা প্রাচীর ভেঙে পড়লে তিনি গুরুতর আহত হন। পরে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

যশোর: জেলার চৌগাছা উপজেলার চানপুর গ্রামে বুধবার ঝড়ের তাণ্ডবে ঘরের উপর গাছ পড়ে মা ও মেয়ের মৃত্যু হয়েছে। নিহতরা হলেন চানপুর গ্রামের মৃত ওয়াজেদ হোসেনের স্ত্রী খ্যান্ত বেগম ও তার মেয়ে রাবেয়া।

স্থানীয়রা জানায়, ঝড়ের সময় খ্যান্ত বেগম ও তার মেয়ে ঘরে ছিলেন। বুধবার রাত ১০টার দিকে ঘরের পাশের একটি গাছ ভেঙে ঘরের ওপর পড়ে। এ সময় চাপা পড়ে মা ও মেয়ে নিহত হন।