বুলবুল আতঙ্কে ভোলায় ২ লাখ ২০ হাজার মানুষ আশ্রয়কেন্দ্রে

আপডেটঃ ৫:৫৭ অপরাহ্ণ | নভেম্বর ০৯, ২০১৯

সি এন এ নিউজ,ভোলা:মোংলা সমুদ্রবন্দর থেকে ২৪০ কিলোমিটার দূরে অবস্থান করছে ঘূর্ণিঝড় বুলবুল। শনিবার (০৯ নভেম্বর) সন্ধ্যা থেকে মধ্যরাত নাগাদ পশ্চিমবঙ্গ-খুলনা উপকূল অতিক্রম করতে পারে ঘূর্ণিঝড়টি। ঘূর্ণিঝড়ের প্রভাবে বাংলাদেশের উপকূলীয় এলাকায় দমকা হাওয়া বইছে।

এ অবস্থায় ভোলার সাত উপজেলার নিম্নাঞ্চল ও চরাঞ্চলের ২ লাখ ২০ হাজার মানুষকে আশ্রয়কেন্দ্রে নেয়া হয়েছে। পাশাপাশি ৮৬ হাজার গবাদি পশুকে স্থানীয় মুজিব কেল্লায় রাখা হয়েছে। শনিবার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে এসব তথ্য নিশ্চিত করেন ভোলার জেলা প্রশাসক (ডিসি) মোহাম্মদ মাসুদ আলম ছিদ্দিক।

Bhola-People

ডিসি মোহাম্মদ মাসুদ আলম ছিদ্দিক বলেন, ঘূর্ণিঝড় বুলবুল মোকাবিলায় জেলা প্রশাসন থেকে ব্যাপক প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়েছে। ঘূর্ণিঝড় মোকাবিলায় ভোলার ৬৬৮টি আশ্রয়কেন্দ্র খুলে দেয়া হয়েছে। ৯২টি মেডিকেল টিম গঠন করা হয়েছে। আটটি কন্ট্রোল রুম খোলা হয়েছে। পাশাপাশি উপকূলে ১৩ হাজারের বেশি বিভিন্ন সংগঠনের কর্মী কাজ করছেন।

তিনি আরও বলেন, ঘূর্ণিঝড় বুলবুল মোকাবিলায় পর্যাপ্ত পরিমাণ ত্রাণ মজুত রাখা হয়েছে। আশ্রয়কেন্দ্রগুলোতে শনিবার দুপুরে খিচুড়ি ও ভাত খেতে দেয়া হয়েছে আশ্রিতদের।

Bhola-People

এদিকে ভোলায় ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের প্রভাবে শনিবার সকাল থেকে গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি হচ্ছে। মাঝে মধ্যে ভারী বৃষ্টি নামছে। সেই সঙ্গে রয়েছে ঝোড়ো বাতাস। মেঘনা নদীর ঢেউ বেড়েছে কয়েকগুণ। স্রোতের সঙ্গে বাড়ছে পানি। নদী ও সাগরে মাছ শিকারে যাওয়া নৌকা ও ট্রলার নদীর তীরে অবস্থান করছে।