যে ম্যাচে চোখ রাখছে বাংলাদেশ

আপডেটঃ ১০:৪৭ পূর্বাহ্ণ | জুন ২৯, ২০১৯

ক্রীড়া প্রতিবেদক:বিশ্বকাপ চলাকালিন হানিমুন করার সৌভাগ্য কতজন পেয়েছেন? মেহেদী হাসান মিরাজ লাকি নম্বর।  স্ত্রী প্রীতি বিশ্বকাপের শেষ দিকে যোগ দিয়েছেন মিরাজের সঙ্গে। স্নোডোনিয়ায় কেটেছে নতুন দম্পতির রোমাঞ্চ।

বিশ্বকাপের দীর্ঘ সফরে একটু বিশ্রাম দরকার ছিল ক্রিকেটারদের।  সেই একটু’টা আবার পাঁচদিনের।  আফগানিস্তান ম্যাচের পর যে ছুটি পেয়েছিলেন ক্রিকেটাররা তা শেষ হবে আজ। তবে অধিকাংশ ক্রিকেটারই গতকাল ফিরেছে হোটেলে।  মাশরাফির সফরসঙ্গী হওয়া মিরাজ গতকাল দুপুরে হোটেলে চেক ইন করেছেন।  তামিম, মুস্তাফিজ লন্ডন থেকে ফিরেছেন বিকেলে।  রাহী লন্ডনে বেরিয়েছেন বোনের বাড়ি।  গতকাল রাতে বোনের স্বামী তাকে পৌঁছে দেন হায়াত রেজেন্সিতে। সাকিবের বিকেলের মধ্যেই ফেরার কথা।

সবাই সন্ধ্যার মধ্যে পৌঁছার পর রাত ৯টায় টিম মিটিং হওয়ার কথা রয়েছে।  আপাতত নিজেদের সেমিফাইনাল নিয়ে তেমন চিন্তিত নয় বাংলাদেশ।  সামনেই বাংলাদেশের ভারত পরীক্ষা।  মাঠের ক্রিকেটে ভালো পারফরম্যান্স করে সেই পরীক্ষায় উৎরাতে চায় বাংলাদেশ।

মানসিকভাবে বেশ ফুরফুরে আছেন মেহেদী হাসান মিরাজ।  ভারতকে হারাতে দৃঢ়প্রতিজ্ঞ এ স্পিন অলরাউন্ডার,‘আমরা তো ম্যাচটা জয়ের জন্যই নামব। বাকিটা আল্লাহর ইচ্ছা।  আমাদের সামর্থ্যের কোনো অভাব নেই।  আমাদের সেই বিশ্বাসটাও আছে। ’

ভারতীয় ক্রিকেটাররা আর বাংলাদেশি ক্রিকেটাররা উঠেছেন হায়াত রেজেন্সিতে।  বিলাসবহুল হোটেলে সকাল বিকাল দুই দলের ক্রিকেটারদের সঙ্গে দেখা হচ্ছে।  গতকাল মাশরাফি ও ধোনির সঙ্গে কুশলাদি বিনিময় হয়েছে।  সন্ধ্যায় একই সঙ্গে লিফট থেকে নেমেছেন যুজুবেন্দ্র চাহাল ও মিরাজ।  হাই, হ্যালো হয়েছে দুজনের মধ্যে।  ভারতীয় ক্রিকেটাররা ‘রিজার্ভ’ থাকে বলে তেমন কথা হয় না বলে জানালেন মিরাজ।

তাতে অবশ্য বাংলাদেশের ক্রিকেটারদের কোনো মাথা ব্যথা নেই!  তবে তাদের রোববারের ম্যাচকে ঘিরে রয়েছে আগ্রহ।  এজবাস্টনে বিশ্বকাপের ‘অঘোষিত ফাইনালে’ মুখোমুখি হবে ভারত-ইংল্যান্ড। এ ম্যাচে পুরো বাংলাদেশের সমর্থণ ভারতের পক্ষে। ইংল্যান্ড হারলে বাংলাদেশের লাভ।  সেমিফাইনালে যেতে হলে তাই ইংল্যান্ডের হারা জরুরী! তাইতো এ ম্যাচে চোখ রাখছে বাংলাদেশ।

রোববার মাঠে নামার আগে আজ এজবাস্টনে অনুশীলন করবে ইংল্যান্ড ও ভারত।   ভারতের পরবর্তী ম্যাচ মঙ্গলবার।  একদিনের ব্যবধানে ম্যাচ থাকায় বাংলাদেশের বিপক্ষে অনুশীলন ছাড়াই মাঠে নামবেন কোহলি, ধোনিরা।  ফলে আজই তাদের অনুশীলন দেখার শেষ সুযোগ। জানা গেছে, এই অনুশীলন দেখতে বার্মিংহাম চলে এসেছেন বাংলাদেশ কোচ স্টিভ রোডস।  আজ এজবাস্টনে ভারতীয় দলের অনুশীলন দেখার কথা রয়েছে তার।

একটি জায়গায় বাংলাদেশ পাচ্ছে স্বস্তি।  কাফ মাসলে চোট পাওয়া মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ সেরে উঠছেন দ্রুত।  শুক্রবার জুমাআর নামাজ আদায় করেছেন ক্র্যাচ ছাড়া হেঁটে গিয়ে।  রাতে ডিনারেও গিয়েছিলেন ক্র্যাচ ছাড়া।  ২ তারিখ মহারণের জন্য সব প্রস্তুতিই নিচ্ছেন মাহমুদউল্লাহ।