এবার সুনামগঞ্জে মাদরাসা ছাত্রীকে যৌন হয়রানি, শিক্ষক গ্রেফতার

আপডেটঃ ১১:৩৯ অপরাহ্ণ | এপ্রিল ২৭, ২০১৯

সি এন এ নিউজ,সুনামগঞ্জ:ফেনীর সোনাগাজীর ঘটনার পর এবার সুনামগঞ্জের ছাতক উপজেলার গোবিন্দনগর ফজলিয়া ফাজিল মাদরাসার এক ছাত্রীকে যৌন হয়রানির অভিযোগে মাদরাসার শিক্ষক রাজিবুর রহমানকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শনিবার সন্ধ্যায় ছাতক থানা পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে। এর আগে দুপুরে রাজিবুলের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ করে ছাত্রীর পরিবার।

ওই শিক্ষার্থীর অভিযোগ, মাদরাসার ইংরেজি শিক্ষক রাজিবুর রহমান তাকে যৌন হয়রানি করেন। অভিযুক্ত শিক্ষকের ব্যাপারে অধ্যক্ষের কাছে দুই দফা বিচার চাইলেও অধ্যক্ষ কোনো বিচার করেননি। এ কারণে তিনি চলমান আলিম পরীক্ষায় অংশ নেননি।

ওই শিক্ষার্থী জানায়, ২০১৮ সালের অক্টোবর মাসে বাসায় প্রাইভেট পড়াতো রাজিবুর রহমান। এসময় তার সঙ্গে অসৌজন্যমূলক আচরণ করা হয়। নানাভাবে তাকে যৌন হয়রানি করেন এবং বিভিন্ন প্রলোভন দিয়েছেন ওই শিক্ষক। এতে তিনি ৬ দিন প্রাইভেট পড়ে ওই শিক্ষকের কাছে পড়া বন্ধ করে দেন। অধ্যক্ষের কাছে এ নিয়ে বিচার দিলেও তিনি কোনো বিচার পাননি। এজন্য লেখাপড়া বন্ধ করে দিয়ে আলিম পরীক্ষায় অংশ নেননি তিনি। এ ঘটনায় ওই শিক্ষার্থী বাদী হয়ে শনিবার থানায় লিখিত অভিযোগ দেন।

এ ব্যাপারে অধ্যক্ষ মাওলানা আব্দুস সালাম আল মাদানী বলেন, আামাকে এ বিষয়ে দুইদিন মোবাইল ফোনে শিক্ষার্থীর পরিবার থেকে জানানো হয়েছে। বিষয়টি নিষ্পত্তির জন্য চেষ্টা করা হয়েছে। এ বিষয়ে গত ২৮ মার্চ মাদরাসায় একটি সভাও অনুষ্ঠিত হয়েছে।

এ ঘটনায় ছাতক থানা পুলিশের ওসি আতিকুর রহমান বলেন, এ ঘটনায় থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। আমরা অভিযুক্ত মাদরাসা শিক্ষক রাজিবুর রহমানকে গ্রেফতার করেছি।