কিশোরগঞ্জ -৫ আসন বিচ্ছিন্ন জনগোষ্ঠির ভাগ্য উন্নয়নের হাল ধরতে চায় কেন্দ্রীয় নেতা শাহ্ নূর

আপডেটঃ ৮:৫৭ অপরাহ্ণ | অক্টোবর ২০, ২০১৮

 নিকলী (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি: কিশোরগঞ্জের প্রাচীন জনপদ নিকলী-বাজিতপুর। ব্রিটিশ শাসানামলে ১৮৬৪ সালে ময়মনসিংহের একদিন আগে বাজিতপুর পৌরসভা প্রতিষ্ঠিত হয়। আর পাশের উপজেলা ১৮১৮ সালে প্রতিষ্ঠিত হাওড় জনপদ নিকলী থানা।একসময় পাট,কৃষি,বিভিন্ন মাছের জন্য বিখ্যাত ছিলো নিকলী। আসনটির দুইটি উপজেলার উজান-ভাটির প্রবেশদ্বার খ্যাত। ফলে উজান-ভাটি মিলে এক অভিন্ন সংস্কৃতির জনপদ নিয়ে নির্বাচনী এলাকা কিশোরগঞ্জ-৫। নিকলী উপজেলার ৭টি ইউনিয়ন ও বাজিতপুর উপজেলার ১টি পৌরসভা এবং ১১ ইউনিয়ন নিয়ে সংসদীয় আসনটি গঠিত।
এ আসনের পশ্চাৎপদ জনগোষ্ঠির বড় অংশ উপজেলা সদর হতে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হাওড়ে বসবাস।একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনকে সামনে রেখে আওয়ামী লীগ নেতাদের জনসংযোগ ও কর্মী সম্মেলন দ্রুত বৃদ্ধি পেলেও সদর হতে বিচ্ছিন্ন হাওড় বেষ্টিত গ্রামগুলোতে মনোনয়ন প্রত্যাশীদের জনসংযোগ অনেকটাই কম দেখা যায় ।এ আসনের ব্যাপক উন্নয়ন ও শতভাগ দলীয় মনোনয়নের দাবিদার, ক্ষমতাসীন দলের সাংসদ আফজাল হোসেন এর বিরুদ্ধে নানান অভিযোগ এনে তার মনোনয়ন ঠেকাতে মনোয়নয়ন প্রত্যাশী ছয়নেতাঃ সাবেক কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ সাধারণ সম্পাদক অজয়কর খোকন,কিশোরগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি ও বাজিতপুর উপজেলা পরিষদ সাবেক চেয়ারম্যান আলাউল হক,বাজিতপুর উপজেলা পরিষদ সাবেক চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি এডঃ শেখ নুরুন্নবী বাদল,জেলা কৃষকলীগের সহ-সভাপতি ফারুক আহম্মেদ,ব্যারিষ্টার রফিকুল ইসলাম মিল্টন,নিকলী উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি হাজী নুরুল আমিন যখন শোডাউন,সভা,সমাবেশ করতে ব্যাস্ত। দুপক্ষের মাঝে চলছে কাউন্টার শোডাউন। এতে দোষারোপ করছে এক গ্রুপ অপর গ্রুপকে।এসময় লবিং,গ্রুপিং,দলীয় কোন্দলের উর্ধ্বে থেকে কেন্দ্রীয় নির্দেশনায় এ আসনে নিরলসভাবে দলের নেতাকর্মী নিয়ে নৌকা যোগে প্রত্যন্ত হাওড় জনপদগুলোতে দিনভর দলীয় প্রচারণা ও গণসংযোগ করে চলছেন মনোনয়ন প্রত্যাশী কেন্দ্রীয় নেতা শাহ্ নূর। দলীয় কোন্দলের বাইরে থেকে গণসংযোগ করায় দিন দিন সাধারণ নেতা-কর্মী শাহনূর কে আপন করে নিচ্ছে বলে জানা যায়।
লাগাতার দুইবছর কৃষি বিপর্যস্ত ইউনিয়নগুলোর কৃষকদের সুবিধা,পদবি ত,নবীন,প্রবীন আওয়ামী লীগ নেতাদের পরিবার, প্রয়াত ও শহীদ মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের খোঁজ খবর নিচ্ছেন এ নেতা । স্থানীয়ভাবে দলীয় কোন্দল ও নেতাদের মতবিরোধের উর্ধ্বে থেকে,বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়তে এবং এ আসনের অবহেলিত গ্রামগুলোর শিক্ষা,কৃষি,খাদ্য,বিদ্যুৎ তথা সার্বিক যোগাযোগ উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে শেখ হাসিনার হাত কে শক্তিশালী করুন এবং নৌকা মার্কায় ভোট দিয়ে আওয়ামী লীগকে পুনরায় ক্ষমতায় আনতে এলাকাবাসী ও দলীয় নেতা-কর্মীদের প্রতি আহ্বান জানান,মনোনয়ন প্রত্যাশী বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সাবেক কেন্দ্রীয় সহ সম্পাদক এবং বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের বন ও পরিবেশ বিষয়ক উপকমিটির সদস্য, তরুন নেতা শহীদুল্লাহ মুহাম্মদ শাহ্ নূর।