দালালের খপ্পরে গামের্ন্টেস কর্মী দিশেহারা অভিভাবক

আপডেটঃ ৭:০২ অপরাহ্ণ | ডিসেম্বর ২০, ২০১৬

সি এন এ নিউজ,টঙ্গী ঃ টঙ্গীর ৫০ বিশিষ্ট হাসপাতালে সরকারী হাসপাতালে দালালের খপ্পরে পরে গামের্ন্টেস কর্মী আমিনুল ইসলাম (৩০) এর পরিবার দিশেহারা, অভিযোগ ফ্যক্টরীর মালিক পক্ষের। মঙ্গলবার সকাল ১০’টায় হাসপাতালের ভিতরে এ ঘটনাটি ঘটেছে। ভুক্তভোগী আমিনুল ইসলাম এনাম ফ্যাশন কর্মচারী, বউ বাজার মইনুল ইসলামের ছেলে। ফ্যক্টরীর মার্চেইনডাইজার মোঃ নুলে আলমের বরাতে সকালে কাজ করা অবস্থায় আমিনুল ইসলামের মুখের ভিতর কেমিক্যাল চলে যাওয়ায় দ্রুত চিকিৎসা দেওয়ার জন্য টঙ্গী সরকারী হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্মরত ইমাজেন্সি ডাক্তারের যথোপুযক্ত সহযোগীতা না পেয়ে উক্ত হাসপাতালের মেডিকেল এ্যাসিন্ট্যান্ট রফিকের মাধ্যমে ৪৫০/- টাকা দিয়ে সরকারী এ্যাম্বুলেন্স ভাড়া করা সত্বেও দালাল মিরাজ, সুমন, আরিফ এর খপ্পরে পড়ে রিক্সা যোগে সেবা হাসপাতালের সামনে থেকে আরিফের মা এ্যাম্বুলেন্স যোগে উত্তরার রিসেন্ট হাসপাতালে নিয়ে যায়, যাওয়ার ফলে অনেক দুভোর্গে পরতে হয়েছে আমিনুলের পরিবারকে। এ বিষয়ে রফিক এর বক্তব্য নিলে তিনি জানান, হাসপাতাল থেকে তাদের ভাড়াকৃত সরকারী এ্যাম্বুলেন্সে রোগী নেওয়ার আগে অন্য কোন লোকের মাধ্যমে অন্যত্র চিকিৎসার জন্য গেলে আমাদের কোন দায়বদ্ধতা নেই। তবে আরএমও টাকা ফেরত দেওয়ার ব্যাপারে সিন্ধান্ত নেওয়ার সর্বময় ক্ষমতার অধিকারী। ফলে উক্ত বিষয়টির উদ্ধর্তন কর্তৃপক্ষের সু-দৃষ্টি আর্কষন করছে সকলে।